শনিবার ১৩ এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩০ চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

অভিবাসী নিয়ে লিগ্যাল এইডের সঙ্গে নিউইয়র্ক সিটির চুক্তি

এনা :   বুধবার, ২০ মার্চ ২০২৪ 12695
অভিবাসী নিয়ে লিগ্যাল এইডের সঙ্গে নিউইয়র্ক সিটির চুক্তি

অভিবাসী সংকট নিরসনে লক্ষে নিউইয়র্ক সিটি কর্তৃপক্ষ লিগ্যাল এইড সোসাইটির সাথে একটি চুক্তি করেছে। সিটি মেয়র এরিক অ্যাডামস গত ১৫ মার্চ বিষয়টি ঘোষণা করেছেন। তিনি জানান, সিটি অফ নিউইয়র্ক লিগ্যাল এইড সোসাইটির সাথে একটি চুক্তি সম্পন্ন করেছে। এটি বর্তমান অভিবাসন সংকটের সময় শহরের ‘রাইট টু শেল্টার’ সম্পর্কিত ক্যালাহান বনাম কেরিতে ১৯৮১ সালের সম্মতি ডিক্রির অধীনে শহরটিকে অতিরিক্ত নমনীয়তা প্রদান করে।

কয়েক মাস আলোচনার পর ফেডারেল সরকারের অর্থপূর্ণ সাহায্য ছাড়াই শহরটি জাতীয় মানবিক সংকট মোকাবেলা অব্যাহত রেখেছে।

শহর কর্তৃপক্ষ ধারাবাহিকভাবে যুক্তি দেখিয়ে বলছে, ৪০ বছরেরও বেশি সময় আগে ‘আশ্রয়ের অধিকার’ চালু হয়েছে। ওই সময় শহরের আশ্রয় ব্যবস্থায় ২ হাজার ৫০০ জনেরও কম লোক ছিল। বর্তমানে তা ১ লাখ ২০ হাজারের বেশি। এর মধ্যে প্রায় ৬৫ হাজারই অভিবাসী। আজকে নিউইয়র্ক সিটি যে জাতীয় মানবিক সংকটের মুখোমুখি আগে কখনো তা হয়নি।

মেয়র অ্যাডামস বলেন, ‘২০২২ সালের বসন্ত থেকে এ পর্যন্ত প্রায় ১ লাখ ৮৩ হাজার নতুন আগমনকারীর আশ্রয় ও যত্ন প্রদান করে নিউইয়র্ক সিটি জাতীয় মানবিক সংকট মোকাবেলায় জাতিকে নেতৃত্ব দিয়েছে।

কিন্তু আমরা প্রথম দিন থেকেই স্পষ্ট যে ‘আশ্রয়ের অধিকার’ থাকা সত্ত্বেও দুই বছরেরও কম সময়ে পাঁচটি বরোতে আসা জনসংখ্যার জন্য বেশিরভাগ মার্কিন বড় শহরের চেয়ে বেশি আবেদন করার ইচ্ছা ছিল না।

আজকের চুক্তি সেই বাস্তবতা স্বীকার করে এবং আমরা বর্তমানে যে জাতীয় মানবিক সংকট মোকাবেলা করছি সেরকম সংকটের সময়ে আমাদের অতিরিক্ত নমনীয়তা প্রদান করে।

স্থিতাবস্থা চলতে পারে না এই স্বীকৃতি এবং সংকট মোকাবেলায় নিউইয়র্ক সিটিকে অতিরিক্ত সরঞ্জাম দেওয়া এবং সবচেয়ে দুর্বলরা তাদের প্রয়োজনীয় সহায়তা পেতে পারে তা নিশ্চিত করার জন্য আদালত ও লিগ্যাল এইড সোসাইটিকে ধন্যবাদ জানাই।

সারাদেশের প্রভাবিত শহরগুলোর মতো আমরা একা এই সংকটের ধাক্কা সহ্য করতে পারি না। এছাড়া দ্রুত কাজের অনুমোদন, আরও তহবিল ও জাতীয় পুনর্বাসন কৌশলসহ আমাদের ফেডারেল অংশীদারদের কাছ থেকে উল্লেখযোগ্য সহায়তা চাওয়া চালিয়ে যেতে পারি না।

নিউইয়র্ক সিটি করপোরেশনের কৌঁসুলি সিলভিয়া ও. হিন্দস-র‌্যাডিক্স বলেছেন, ‘এই চুক্তিটি শহরটির সবচেয়ে বড় সংকটগুলোর একটি মোকাবেলায় সহায়তা করার জন্য পক্ষগুলো এবং আদালতের অক্লান্ত, সৎ-বিশ্বাসের প্রচেষ্টার প্রতিনিধিত্ব করে।’

Facebook Comments Box

Comments

comments

Posted ৬:৫৬ অপরাহ্ণ | বুধবার, ২০ মার্চ ২০২৪

America News Agency (ANA) |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ

 

President/Editor-in-chief :

Sayeed-Ur-Rabb

 

Corporate Headquarter :

 44-70 21st.# 3O1, LIC. New York-11101. USA, Phone : +6463215067.

Dhaka Office :

70/B, Green Road, 1st Floor, Panthapath, Dhaka-1205, Phone : + 88-02-9665090.

E-mail : americanewsagency@gmail.com

Copyright © 2019-2024Inc. America News Agency (ANA), All rights reserved.ESTD-1997