শনিবার ১৫ মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

আমেরিকান অঞ্চলে করোনা এখনও চূড়ায় যায়নি: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

এনা অনলাইন :   বৃহস্পতিবার, ২৫ জুন ২০২০ 210 ভিউ
আমেরিকান অঞ্চলে করোনা এখনও চূড়ায় যায়নি: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলেছে, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় এক কোটি হলেও আমেরিকান অঞ্চলগুলোতে এ ভাইরাসের সংক্রমণ চূড়ান্ত অবস্থায় পৌঁছায়নি। ডব্লিউএইচও’র জরুরি কর্মসূচির নির্বাহী পরিচালক মাইক রায়ান বুধবার সংস্থাটির সদর দফতরে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘উত্তর, দক্ষিণ ও মধ্য আমেরিকার অনেক দেশে এখনও ভাইরাসটির কমিউনিটি ট্রান্সমিশন হচ্ছে। দুর্ভাগ্যক্রমে,আমেরিকার অনেক দেশের মহামারিটি এখনও শীর্ষে পৌঁছায়নি।’

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, মঙ্গলবার একদিনে বিশ্বব্যাপী করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ছিল এক লাখ ৩৩ হাজার ৩২৬ জন। এর এক তৃতীয়াংশেরও বেশি আক্রান্ত মেক্সিকো, চিলি, পেরু, ব্রাজিল ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। এই পাঁচ দেশে ওই দিন মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৫৮ হাজার ৫৮৩ জন। খবর বিবিসি ও সিএনবিসির।

জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটির তথ্যানুযায়ী, বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে খারাপ করোনা পরিস্থিতি যুক্তরাষ্ট্রে। বৃহস্পতিবার পর্যন্ত দেশটিতে বিশ্বের সর্বোচ্চ সংখ্যা আক্রান্ত হয়েছে, প্রায় সাড়ে ২৪ লাখ। মৃতের দিক থেকেই দেশটি চূড়ায় আছে, এখন পর্যন্ত সেখানে  ১ লাখ ২৪ হাজারের বেশি লোক মারা গেছে।

আর মঙ্গলবার পর্যন্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সাত দিনের গড়ে কোভিড -১৯ আক্রান্তের সংখ্যা আগের সাতদিনের চেয়ে ৩২% বেড়েছে বলে হপকিন্সের তথ্যের ভিত্তিতে সিএনবিসি বিশ্লেষণে উঠে এসেছে। দেশটির অ্যারিজোনা, টেক্সাস, মন্টানাসহ ৩০টির বেশি রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ৫ শতাংশ অথবা তার বেশি বেড়েছে।

নিউইয়র্কে যখন কোভিড কেস কমেছে, তখন অন্য রাজ্যগুলোতে সংক্রমণের হার বাড়ছে। এবং এক্ষেত্রে কমিউনিটি কংক্রমণকে প্রতিফলিত করে এমন ঘটনাগুলো বৃদ্ধি পাচ্ছে।

মঙ্গলবার দেশটির শীর্ষস্থানীয় সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. অ্যান্টনি ফৌসি উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, ‘আমেরিকার ক্ষেত্রে করোনা প্রাদুর্ভাবের চূড়ায় যেতে প্রতিদিন গড়ে প্রায় ৩০ হাজার সংক্রমণ হচ্ছিল, যেখানে করোনার চূড়ায় যেতে প্রতিদিন গড়ে ২০ হাজার আক্রান্ত হয়। এখন আবার আমরা উপরে যাচ্ছি। এটি আমার কাছে খুব ঝামেলার মনে হচ্ছে।’

জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আশঙ্কা করছেন যে, গ্রীষ্মে আস্তে আস্তে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়া বাড়লে ভাইরাসের ব্যাপক পুনরুত্থান ঘটতে পারে। কারণ এই সময় একই সঙ্গে মৌসুমী ফ্লুতে মানুষ অসুস্থ হয়। দ্য ইনস্টিটিউট ফর হেলথ মেট্রিক্স অ্যান্ড ইভিল্যুশন ধারণা করছে, অক্টোবরের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রে ২ লাখের বেশি মানুষ করোনা সম্পর্কিত কেসে মারা যাবে।

এদিকে, ডব্লিউএইচও বিশ্ব নেতাদের সামাজিক দূরত্বের ব্যবস্থাগুলোর প্রতি সচেতনতা বাড়াতে আবারও আহ্বান জানিয়েছে এবং দেশগুলোকে আবার ব্যবসা চালুর ক্ষেত্রে এখনই গতি বাড়াতে নিষেধ করছে।

বুধবার ডব্লিউএইচও’র জরুরি কর্মসূচির নির্বাহী পরিচালক মাইক রায়ান আরও বলেন, ‘আমেরিকান অঞ্চলগুলোতে সংক্রমণের হার কমে এমন পর্যায়ে পৌঁছায়নি, যে কারণে করোনা নিয়ন্ত্রণে সফল ও সামাজিক দূরত্বের ব্যবস্থাগুলোর একটি সফল সমাপ্তির কথা বলব আমরা।’

তিনি আরও বলেন, ‘সাধারণভাবে আমেরিকা তথা মধ্য ও লাতিন আমেরিকার পরিস্থিতি এখনও বিকশিত হিসেবে চিহ্নিত করব আমি। এটি সম্ভবত আগামী সপ্তাহগুলোতে ধারাবাহিক সংখ্যক আক্রান্ত ও অব্যাহত মৃত্যু বয়ে আনবে।’

Facebook Comments Box

Comments

comments

Posted ১০:১১ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২৫ জুন ২০২০

America News Agency (ANA) |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আর্কাইভ

President/Editor-in-chief :

Sayeed-Ur-Rabb

 

Corporate Headquarter :

 44-70 21st.# 3O1, LIC. New York-11101. USA, Phone : +3476537971.

Dhaka Office :

70/B, Green Road, 1st Floor, Panthapath, Dhaka-1205, Phone : + 88-02-9665090.

E-mail : americanewsagency@gmail.com

Copyright © 2019-2021Inc. America News Agency (ANA), All rights reserved.ESTD-1997